১১ মার্চ পবিত্র শবে ‘মেরাজ’

0
107

আজ ১০ মার্চ রজব মাসের ২৫ তারিখ আগামিকাল ১১ মার্চ পবিত্র শবে মেরাজ আল্লাহর কাছে রমজান পর্যন্ত বরকত চাওয়ার মাস রজব। মুমিন মুসলমান পুরো রজব ও পরবর্তী মাস শাবানে আল্লাহর কাছে অজস্র বরকত প্রার্থনা করবে। রমজান পর্যন্ত পৌঁছার আবেদন করবে। রজব ও শাবান মাসজুড়ে যেমনটি করেছেন বিশ্বনবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম। আর আগামী ১১ মার্চ (২৬ রজব) দিবাগত রাতে অনুষ্ঠিত হবে শবে মেরাজ।

এক কথায় বলতে গেলে-
রমজানের রহমত বরকত মাগফেরাত ও নাজাত পেতে প্রস্তুতি নেয়ার মাস রজব। রহমতের বার্তাবহী মাস রজব। প্রিয় নবির শ্রেষ্ঠ উপহার ও মুসলিম উম্মাহর জন্য বরকতময় মাস রজব। এ কাণেই রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এ রজব মাসে আল্লাহর কাছে বিরামহীন বরকতের দোয়া করেছেন।

রজব মাস এলেই রমজান পর্যন্ত বেঁচে থাকার আকুতি জানিয়েছেন নিজে, তাঁর উম্মতকেও এভাবে বলতে বলেছেন-
اَللهُمَّ بَارِكْ لَنَا فِىْ رَجَبَ وَ شَعْبَانَ وَ بَلِّغْنَا رَمَضَانَ
উচ্চারণ : ‘আল্লাহুম্মা বারাকলানা ফি রাজাবা ওয়া শাবান; ওয়া বাল্লিগনা রামাদান।’
অর্থ : ‘হে আল্লাহ! আপনি রজব ও শা’বান মাসকে আমাদের জন্য বরকতময় করুন এবং আমাদেরকে রমজান মাস পর্যন্ত (হায়াত দিন) পৌঁছে দিন।’

বিশেষ মর্যাদাপূর্ণ মাস
হিজরি সপ্তম মাস রজব বিশেষ মর্যাদাপূর্ণ। এ মাসেই প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম মহান আল্লাহ তাআলা দিদার লাভে ধন্য হয়েছেন। উম্মতে মুসলিমার জন্য উপহার হিসেবে নামাজ পেয়েছেন। নবুয়ত ও রেসালের শ্রেষ্ঠ মুজিজা লাভ করেছেন। এ মাসের ২৬ তারিখ দিবাগত রাতেই প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের মেরাজ অনুষ্ঠিত হয়েছিল। এ ‘শবে মেরাজ’-এর জন্যও এ মাসটি কেয়ামত পর্যন্ত মুসলিম উম্মাহর কাছে চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবে।

উল্লেখ্য, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের তথ্য অনুযায়ী দেশের সব জেলা প্রশাসন, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের প্রধান কার্যালয়, বিভাগীয় ও জেলা কার্যালয়, আবহাওয়া অধিদফতর, মহাকাশ গবেষণা কেন্দ্র ও দূর অনুধাবন প্রতিষ্ঠান থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী বাংলাদেশের আকাশে ১৪৪২ হিজরির রজব মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। এজন্য শনিবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) জামাদিউল আখিরা মাস ৩০ দিন পূর্ণ হয়েছে। আগামী ১১ মার্চ পবিত্র শবে মেরাজ পালিত হবে।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে রজব মাসজুড়ে রহমত কামনার পাশাপাশি যথাযোগ্য মর্যাদায় পবিত্র ‘শবে মেরাজ’ শীর্ষক আলোচনা ও মর্যাদা অনুধাবন করার তাওফিক দান করুন। আমিন।

উত্তর দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here