ডিভোর্স দিয়ে ২০০ কোটি টাকা দিতে চান নাগা, যা বললেন সামান্থা

ভারতের দক্ষিণী সিনেমার তারকা দম্পতি নাগা-সামান্থা। বেশ কিছুদিন ধরেই তাদের বিচ্ছেদের গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল। অবশেষে সেই গুঞ্জনকে সত্যি করে চার বছরের সংসার জীবনের ইতি টেনে ডিভোর্সের ঘোষণা দিয়েছেন নাগা চৈতন্য এবং সামান্থা আক্কিনেনি। এতদিন বিবাহবিচ্ছেদের গুঞ্জন চললেও এবার সামনে এসেছে ভরণপোষণের বিষয়ে আলোচনা।

আগেই শোনা গিয়েছিল, বিচ্ছেদের পর নাগার কাছ থেকে ভরণপোষণ বাবদ ৫০ কোটি টাকা পাবেন সামান্থা। তবে এখন শোনা যাচ্ছে, ৫০ কোটি নয়, সামান্থাকে ২০০ কোটি টাকা ভরণপোষণ দেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছেন নাগা। কিন্তু সেই টাকা নিতে নারাজ এই অভিনেত্রী। সামান্থা জানান, তিনি নাগার কাছ থেকে একটি টাকাও নিবেন না।

আরও পড়ুন… মাদকের পার্টি থেকে আটক শাহরুখপুত্র আরিয়ান!
সামান্থার ঘনিষ্ঠ এক ব্যক্তি ভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, ‘সামান্থা এ সম্পর্কটা থেকে শুধু বন্ধুত্ব এবং ভালোবাসা চেয়েছিল। বিয়েটাই ভেঙে গেল। ও একটা টাকাও নেবে না।’

বিচ্ছেদের বিষয়টি প্রকাশ্যে এনে গত শনিবার (২ অক্টোবর) মাইক্রোব্লগিং সাইট টুইটারে নাগা একটি বিবৃতিতে লিখেছেন, ‘অনেক আলোচনা ও চিন্তার পর সামান্থা ও আমি স্বামী-স্ত্রী হিসেবে বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমরা সৌভাগ্যবান যে আমাদের এক দশকের বেশি বন্ধুত্ব, যা আমাদের সম্পর্কের মূল বিষয় ছিল। আশা করছি এটিই আমাদের বন্ধন টিকিয়ে রাখবে।’

তিনি আরও লিখেছেন, ‘এই কঠিন সময়ে সহযোগিতা ও প্রাইভেসি দেওয়ার জন্য আমাদের ভক্ত, শুভাকাঙ্ক্ষী ও মিডিয়াকে ধন্যবাদ। আমাদের এগিয়ে যেতে হবে।’ সামান্থাও ইনস্টাগ্রামে এই বিবৃতি পোস্ট করেছেন।

আরও পড়ুন… কনসার্টে আহত ‘মানিকে মাগে হিতে’র ইয়োহানি
প্রসঙ্গত, দীর্ঘদিন প্রেমের পর ২০১৭ সালের ৬ অক্টোবর অভিনেত্রী সামান্থা রুথ প্রভুর সঙ্গে সাতপাকে বাঁধা পড়েন নাগা চৈতন্য আক্কিনেনি। জানা গেছে, বিয়ের পরও অভিনয় চালিয়ে যেতে চান সামান্থা। কিন্তু পর্দায় তার খোলামেলাভাবে উপস্থিতি পছন্দ করছিলেন না নাগা চৈতন্য ও তার বাবা নাগার্জুনা আক্কিনেনি। আর এজন্যই তাদের দূরত্ব তৈরি হয়েছে। এখন তা ডিভোর্স পর্যন্ত গড়িয়েছে।

উত্তর দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here