টাকা না পেয়ে রেগে ফিরলেন জামাই, পরদিন স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার

0
201

যশোরের চৌগাছায় হাসু খাতুন (২৫) নামে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ নিহত হাসু উপজেলার চাকলা গ্রামের দুবাই প্রবাসী আলাউদ্দিনের স্ত্রী তার বাম হাতের রগ বাম পায়ের রগ ব্লেড দিয়ে কাটা ছিল

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে পুলিশ। তবে তাদরে পৌঁছানোর আগেই মরদেহটি নামিয়ে ফেলেন আলাউদ্দিনের মা (হাসুর শাশুড়ি)। পরে মরদেহটি উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়। এ ছাড়া জিজ্ঞাসাবাদের জন্য হাসুর স্বামী আলাউদ্দিনকে হেফাজতে নেয়া হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছে চৌগাছা থানার উপপরিদর্শক এনামুল।

নিহত হাসুর বাবা মোহাম্মদ উল্লাহ জানান, ‘১০ বছর আগে একই গ্রামের আলাউদ্দিনের সঙ্গে আমার মেয়ের বিয়ে হয়। আমি জামাইয়ের কাছে এক লাখ ৪০ হাজার টাকায় একটি জমি বিক্রি করেছিলাম। গতকাল শনিবার সে আমার বাড়িতে বেড়াতে গিয়ে আমার কাছে আবার ২ লাখ টাকা দাবি করে। তখন আমি তাকে অন্য কোথাও জমি বিক্রি করে তার চাহিদার টাকা জোগাড় করতে বলি।’

‘ওই ঘটনায় জামাই আলাউদ্দিন রাগারাগি করে বাড়ি থেকে চলে যায়। সকালে শুনি আমার মেয়ে মারা গেছে। পরে, দেখি তার হাত ও পায়ের রগ কাটা। গায়ে খেজুরের কাটা ফোটানো আছে।’ তার মেয়েকে আঘাত করে হত্যা করা হয়েছে বলে তিনি দাবি করেন।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত হাকিমপুর ইউপি চেয়ারম্যান মাসুদুল হাসান বলেন, প্রাথমিকভাবে এটাকে হত্যাকাণ্ড বলেই মনে হচ্ছে। লাশের বাম হাতের রগ কাটা অবস্থায় রয়েছে। বাম পায়েও ধারালো কিছু দিয়ে কাটার দাগ রয়েছে। 
 
চৌগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম সবুজ বলেন, জিজ্ঞাসাবাদের জন্য হাসুর স্বামী আলাউদ্দিনকে পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য মরদহে যশোর জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

উত্তর দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here